রাজশাহীতে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৩

রাজশাহীর বাঘা উপজেলায় যাত্রীবাহী একটি বাস খাদে পড়ে তিনজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন অন্তত ২০ জন।

বৃহস্পতিবার ভোর ৬টার দিকে বাঘা-রাজশাহী সড়কের মীরগঞ্জ মোড়ের ভানুকর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন-বাঘা উপজেলার ছাতারী গ্রামের সমসের আলীর ছেলে আবু হানিফ (২৩), মনিগ্রাম বান্দাবটতলা গ্রামের মুনছার আলীর স্ত্রী মনোয়ারা বেগম (৪৫) এবং হরিরামপুর দাঁড়পাড়া গ্রামের নিয়াত আলীর স্ত্রী বাদলা বেগম (৪২)। আবু হানিফ বাসের হেলপার। অন্য দুজন বাসের যাত্রী।

বাঘা বাসস্ট্যান্ডের চেইন মাস্টার আবদুল হক বলেন, রজনীগন্ধা (সিরাজগঞ্জ-ব-০৫) নামের বাসটি ৩৫ জন যাত্রী নিয়ে ভোর ৫টা ৪৫ মিনিটে বাঘা বাসস্ট্যান্ড থেকে রাজশাহীর উদ্দেশ্যে রওনা হয়। ৬টার দিকে মনিগ্রাম ইউনিয়নের মীরগঞ্জ মোড়ের ভানুকর এলাকায় একটি নসিমনকে অতিক্রম করতে গিয়ে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদে পড়ে যায়। এতে এই হতাহতের ঘটনা ঘটে।

বাসের যাত্রী বাঘার মনিহারপুর গ্রামের রাহাদুল ইসলামও একই কথা বলেছেন। তিনি বলেন, ‘একটি নসিমনকে ওভারটেক করার সময় ঘটনাটি ঘটে। অল্পের জন্য আমি বেঁচে গেছি।’

মীরগঞ্জ ভানুকর এলাকার প্রত্যক্ষদর্শী নবী বিশ্বাস বলেন, ‘সকালে ঘুম থেকে উঠে কেবল বাড়ির বাইরে আসি। তখনই চোখের সামনে দুর্ঘটনা ঘটে। এরপর বাসের ভেতর থেকে যাত্রীদের উদ্ধার শুরু করেন স্থানীয়রা।’

বাঘা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মহসীন আলী বলেন,  ‘তিনজনের মরদেহ উদ্ধার করে পরিবারের কাছে দেয়া হয়েছে। দুর্ঘটনায় অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন। চিকিৎসার জন্য তাদের বিভিন্ন হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।’

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিন রেজা জানান, জেলা প্রশাসনের নির্দেশনা মোতাবেক দুর্ঘটনার পর ঘটনাস্থলেই নিহতদের প্রত্যেক পরিবারকে ২০ হাজার টাকা করে দেয়া হয়েছে।

share this news:
WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com