শেষ ম্যাচেও জয় পেল না আফগানিস্তান

বিশ্বকাপের চূড়ান্তপর্বে এটি দ্বিতীয়বারের মতো খেলতে ইংল্যান্ড যাত্রা হয়েছিল আফগানিস্তানের। ক্রিকেটে উদীয়মান হিসেবে বড় কিছু করার লক্ষ্য ছিল। কিন্তু লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত বিশ্বকাপের প্রথমপর্ব থেকে কোনো পয়েন্ট না নিয়েই বাড়ি ফিরতে হচ্ছে আফগানদের। নয় ম্যাচ থেকে কোনো পয়েন্ট তারা অর্জন করতে পারেনি।

দুই-একটি ম্যাচে লড়াই করলেও শেষ পর্যন্ত জয়ের মুখ দেখতে পারেনি আফগানিস্তান। তাই বিশ্বকাপের দুই আসর মিলে ২০১৫ সালে স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে একটি জয়ই লেখা থাকল তাদের খাতায়। বৃহস্পতিবার গ্রুপপর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাছে ২৩ রানে হেরেছে আফগানরা।

লিডসে টস জিতে শুরুতে ব্যাট করতে নেমে ছয় উইকেটে ৩১১ রান করে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। জবাব দিতে নেমে নির্ধারিত ওভারে আফগানিস্তান থেমেছে ২৮৮ রানে। এই জয়ে ক্যারিবীয়রা পাঁচ পয়েন্ট নিয়ে নবম স্থানে থেকে শেষ করল নিজেদের বিশ্বকাপ মিশন।

জয়ের জন্য ৩১২ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা খারাপ হয়নি আফগানদের। মাত্র পাঁচ রানে গুলবাদিন নাইব আউট হলেও দ্বিতীয় উইকেটে দারুণ ১৩৩ রানের দারুণ জুটি গড়েন ইকরাম আলিখি ও রহমত শাহ। ইকরাম ৮৬ ও রহমত ৬২ রান করে আউট হন। দলীয় ১৮৯ রানে ইকরাম আলিখি তৃতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হলে তাসের ঘরের মতো ভেঙে পড়ে আফগানদের ইনিংস।

পরবর্তী ব্যাটসম্যানদের মধ্যে আসগর আফগান (৪০), নাজিবুল্লাহ জাদরান (৩১) ও সাইয়েদ শিরজাদ (২৫) ছাড়া কেউ দুই অঙ্ক ছুঁতে পারেননি। ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েট চারটি এবং কেমার রোচ তিনটি করে উইকেট নেন।

এর আগে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে দলীয় ২১ রানে ক্রিস গেইলের বিদায়ে শুরুতেই ধাক্কা খায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। পরবর্তীতে তিন হাফসেঞ্চুরিতে বড় স্কোর পায় তারা। এভিন লুইস ৫৮, ওয়ান ডাউন ব্যাটসম্যান শাই হোপ ৭৭ এবং নিকোলাস পুরান ৫৮ রান করেন। এছাড়া জেসন হোল্ডার ৪৫ ও শিমরন হেটমায়ার করেন ৩৯ রান। আফগানিস্তানের হয়ে দৌলত জাদরান ৭৩ রানে ২ উইকেট নেন।

share this news:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *