ফুটবলেও বাংলাদেশকে হুঙ্কার আফগানদের

চট্টগ্রামে চলছে বাংলাদেশ আফগানিস্তান টেস্ট ক্রিকেট। এ ম্যাচ যেদিন শেষ হবে তার পরদিন অর্থাৎ মঙ্গলবার ফুটবলে আফগানিস্তানের মোকাবেলা বাংলাদেশ দলের। তাজিকিস্তানের দুশানবেতে এটিই বাংলাদেশ দলের কাতার বিশ্বকাপ বাছাইয়ের প্রথম ম্যাচ। লাল-সবুজরা ১ সেপ্টেম্বর তাজিকিস্তান পৌঁছলেও আফগান ফুটবলররা ভাগে ভাগে মধ্য এশিয়ান এই দেশে পৌঁচ্ছেন।

বাছাইপর্বের প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তান কাতারের কাছে ০-৬ গোলে হেরেছে, যা আফগানদের বাছাইপর্বের পরের ধাপে যাওয়ার ক্ষেত্রে বড় ধাক্কা তাদের। গ্রুপের অপর দল ভারত ১-২ গোলে হারে ওমানের কাছে। ১০ তারিখে বাংলাদেশ-আফগানিস্তান ম্যাচ। অন্য দিকে কাতারের প্রতিপক্ষ ভারত। কাতারের কাছে বিধ্বস্ত আফগানরা এখন ঘুরে দাঁড়াতে চায় বাংলাদেশের বিপেক্ষ। এএফসি ওয়েবসাইটকে দেয়া সাক্ষাৎকারে এমনটাই জানান আফগান কোচ আনউস দস্তগীর।

তার মতে, আমরা কাতারের বিপক্ষে প্রথম ১৫ মিনিটে বেশ চাপে পড়ে চাই। এই সময়েই তিন গোল হজম। তবে ওই সময়ে গোল না হলে স্কোর এমন হতো না। আফগানিস্তান আসলে কুলিয়েই উঠতে পারেনি কাতারের সাথে। কোচের দেয়া তথ্য, কাতার এশিয়ান কাপে যেভাবে খেলে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল সে স্টাইলেই খেলেছে আমাদের বিপক্ষে। কোনো পরিবর্তন ছিল না তাদের খেলায়। দস্তগীর আরো জানান, ‘আমরা কাউন্টার অ্যাটাকে যে সুযোগগুলো পেয়েছিলাম তা কাজে লাগাতে পারলে ভিন্ন হতে পারত স্কোর লাইন।’ এরপরও দলকে নিয়ে আশাবাদ তার। জানালেন, অন্য দল হলে তো তিন গোলের পর ম্যাচই ছেড়ে দিত; কিন্তু এরপরও আমরা ৯০ মিনিট পর্যন্ত লড়েছি। এখন আমাদের লক্ষ্য বাংলাদেশের বিপক্ষে পরের ম্যাচে ভালো খেলা। আমাদের উন্নতির যে জায়গাগুলো আছে সে দিন তা করতে চাই।

এ দিকে বাংলাদেশ ম্যানেজার সত্যজিৎ দাস রুপু জানালেন, ‘কাতারের কাছে ছয় গোলে হারলেও আফগানদের দুর্বল ভাবার কিছু নেই। মূলত তারা কাতারের সাথে সমান তালে খেলতে গিয়েই ১৫ মিনিটে ছিটকে পড়ে ম্যাচ থেকে। আমাদের আরো ট্যাকটিক্যালি খেলতে হবে ১০ তারিখে।’

অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়ার মতে, দুই প্রস্তুতি ম্যাচে আমাদের ফিটনেস এবং সামর্থের পরীক্ষা হয়েছে। দ্বিতীয় প্রস্তুতি ম্যাচে জিততে পারতাম আমরা। দুই ম্যাচের ভুলগুলো নিয়েই কাজ করছেন কোচ।

share this news:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *