সিলেটে মা-মেয়েকে ধর্ষণ মামলার আসামি গুলিবিদ্ধ

সিলেটে ওসমানীনগর উপজেলায় মা ও মেয়েকে ধর্ষণ মামলার এক আসামিকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

রোববার দিবাগত রাত পৌনে ১২টার দিকে উপজেলার বড় ইউসুফপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। গুলিবিদ্ধ বাগেরহাটের ট্রাকচালক খোকন মিয়াকে (২৮) সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ওসমানীনগর থানার ওসি এসএম আল মামুন যুগান্তরকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, খুলনায় বিয়ের আশ্বাসে এক নারীকে চালক খোকন দীর্ঘদিন ধর্ষণ করেন।

বিষয়টি প্রতারণা বুঝতে পেরে ওই নারী বিয়ে জন্য চাপ দেন। এ নিয়ে খোকনের সঙ্গে নোমালিন্য হয় ওই নারীর।

এরপর গত ১০ আগস্ট ওই নারীর মেয়েকে বিয়ের আশ্বাস দেখিয়ে সিলেট নিয়ে আসেন খোকন। ওসমানীনগরে বড়ইউসুফপুর গ্রামের এক প্রবাসীর বাসায় রেখে তাকে নিপীড়ন করেন।

ওই বাসায় খোকনের বাবা জাহাঙ্গীর কেয়ারটেকার হিসেবে থাকতেন। জাহাঙ্গীরের মোবাইল দিয়ে ওই মেয়ে তার মাকে বিষয়টি জানান। শনিবার মা সিলেট এসে মামলা করেন।

রোববার রাত পৌনে ১২টার দিকে উপজেলার বড় ইউসুফপুর গ্রাম থেকে খোকনকে গ্রেফতার করে নিয়ে আসারপথে ২০-১৫ লোক পুলিশে গাড়ি থামিয়ে আসামি ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা করে। এসময় পুলিশ শটগানের গুলি ছুড়ে।

এসময় খোকন গুলিবিদ্ধ হয় এবং পুলিশের এক এসআই, দুই কনস্টেবল আহত হন। এ ঘটনায় একটি এসল্ট মামলা দায়ের করা হয়েছে। খোকনের বাবা জাহাঙ্গীরকেও আটক করেছে পুলিশ।

share this news:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *